সবসময় মনকে হাসিখুশি থাকার উপায়

হাসিখুশি থাকার উপায়

হাসিখুশি থাকার উপায়: একটু হাসিখুশি থাকতে আমরা কতকিছুই না করার চেষ্টা করি। কিন্তু সঠিক উপায়ে তা না হওয়াতে হতাশ হয়ে পড়ি। আজকে আপনাদের সাথে আমি বৈজ্ঞানিক, মনস্তাত্ত্বিক ও আমার ব্যক্তিগত অভিজ্ঞতা শেয়ার করবো। কথা দিলাম, আজকের টেকনিকগুলো কেউ যদি, একটানা ১ মাস চালিয়ে যেতে পারে, তবে সে নিঃসন্দেহে হাসিখুশি মানুষে পরিণত হবে।

চলুন তাহলে আর বকবক না করে হাসিখুশি থাকার উপায় ৭ টি টেকনিক দেখে নেই –

টেকনিক ১: বন্ধু নির্বাচন

সবার আগে এটা জরুরী, কারণ হতাশামার্কা বন্ধুরা তোমাকে হতাশাই করবে। তাই যদি একজন হাসিখুশি ও কমেডি টাইপের কোনো বন্ধু পাও, তবে তার সাথে সুসম্পর্ক গড়ে তোলো। তাকে ফলো করার চেষ্টা করো।

সব সময় হাসি খুশি থাকার উপায়

তুমি তোমার মত করে বন্ধুদের হাসানোর চেষ্টা করো। দেখবে মনের অজান্তেই তুমি নিয়মিত হাসির চেষ্টা করছো। চেষ্টায় কিনা হয় ১ মাস পরেই বুঝতে পারবে।

টেকনিক ২: একটু বেহায়া হও

সব কথা কানে নিবে, কিন্তু মগজে নিবে না। এটাই বোঝাতে চাচ্ছি যে, কে কি বলল না বলল তাতে তোমার কিছু যায় আসে না। কারো কথায় মন খারাপ হলে তৎক্ষণাৎ অন্য কোন কাজে লেগে পড়।

আর মনে মনে বল – আমাকে আমার মত থাকতে দাও, আমি নিজেকে নিজের মত গুছিয়ে নিয়েছি। তবে কেউ যদি তোমার দূর্বল পয়েন্ট নিয়ে রাগানোর চেষ্টা করে, তাহলে সামনের ৩২ পাটি দাত কেলিয়ে হাসো। দেখবে সে চুপ হয়ে যাবে।

টেকনিক ৩: সপ্তাহে ১ দিন হাসপাতাল যাও

অবসর সময় পেলে কিছু সময়ের জন্য হাসপাতাল থেকে ঘুরে আসো। মানুষের দুর্বিসহ জীবনযাপনগুলো মন দিয়ে উপলদ্ধী করো। ইশশ তুমি ওদের থেকে কত সুখী তাই না! ওই বেডে তুমিও যন্ত্রণায় কাতরাতে। কিন্তু দেখ তুমি বিন্দাস ঘুরছো। রোগীদের সাথে কথা বলো। দেখবে, তোমার মন হালকা হয়ে গেছে।

নিজেকে অনেক সুখী ভাববে তুমি। অবসর সময় এই স্মৃতিগুলো স্মরণ করো। দেখবে, তুমি একজন সাহসী যোদ্ধা হয়েছো, যে কিনা নিজের মনকে ব্লাকমেল করে মনকে জয় করতে শিখেছে।

টেকনিক ৪: সৃষ্টিকর্তার সাথে বন্ধুত্ব

শুনতে অবাক লাগছে, তাই না! অবাক হওয়ার কিছু নেই, কারণ এটা সম্ভব। তুমি তোমার অতৃপ্ত না পাওয়াগুলো, মন খারাপের বিষয়গুলো অন্ধকারে ঘরে বসে তোমার স্রষ্টাকে উদ্দেশ্য করে মনে মনে বলা শুরু করো।

মন ভাল রাখার উপায়

ভাববে, তোমার স্রষ্টা তোমাকে মন দিয়ে শুনছে। এভাবে ১ মাস অভ্যাস করো। দেখবে, তোমার বিপদে আপদে ও মন খারাপের সময় তোমাকে কে যেন সান্ত্বনা দিচ্ছে। কি বিশ্বাস হয় না? তাহলে একবার করেই দেখনা।

টেকনিক ৫: অল্পতে তৃপ্ত হও

আচ্ছা ভাবোতো, এ দুনিয়ায় তুমি এসেছো একা আর যাবাও একা। কোনটাই তুমি সৃষ্টি করোনি। শুধু ভোগ করতে পারো কিছু সময়ের জন্য। সৃষ্টিকর্তা যা দ্যান সবটাই বোনাস। তাই যা পেয়েছো, যতটুকু পেয়েছো, তার জন্য সৃষ্টিকর্তাকে মনভরে কৃতজ্ঞতা ও ভালোবাসা জ্ঞাপন করো।

আর মনে মনে বল, তুমি কতই না সুখী? আজ তুমি যেটা পেয়েছো, তা অনেকের কাছেই নেই। বিলাসিতা বা উচ্চবিত্তের সাথে নিজেকে কখনোই তুলনা করবে না। এটা একরকম মরীচিকা যা তোমার সুখকে মদ খাইয়ে মাতাল করে রাখবে।

টেকনিক ৬: মোটিভেশনাল বক্তা হও

তুমি নিজে, যত বড় বিপদের মধ্যেই থাকো না কেন, তোমার আশেপাশের বন্ধুদের মানসিকভাবে সাপোর্ট দাও। তাদের সমস্যা সমাধানের উপায় বল। যেমনঃ তোমার বন্ধু রিসেন্ট ব্রেকাপ করে অনেক হতাশায় ভুগছে। এক্ষেত্রে তুমি ব্রেকাপের পর করণীয় বিষয়গুলো নেট থেকে জেনে নিয়ে তাকে বলো।

ভালো থাকার উপায়

এভাবে বন্ধুদের মানসিকভাবে সাপোর্ট দাও। দেখবে, তুমি একজন মানসিকভাবে শক্তিশালি মানুষে পরিণত হয়েছো। তোমার বন্ধুরাও তোমাকে অনেক ভালোবাসতে শুরু করবে। তোমার মধ্যে মন খারাপ ও হতাশাগুলো ভিড় করতে পারবে না। কারণ তারা জানে তুমি কি জিনিস? তুমি দূর্বল নও। বন্ধুদের সমস্যার সমাধান করতে গিয়ে তোমার মস্তিষ্কের সাবকনসাস মাইণদ সমাধানগুলো সেভ করে রাখবে। তাহলে বুঝো সমস্যা আসার আগেই সমাধান তোমার মাথায়!

টেকনিক ৭: ব্যায়াম ও ঘুম

মনোবিজ্ঞানীদের মতে নিয়মিত ব্যায়াম ও বডি বিল্ডিং শুধু তোমার স্বাস্থ্যের উন্নতিই করে না, সাথে সাথে মনের দুঃখ কষ্টগুলোও দূর করে। কারণ নিয়মিত ব্যায়াম তোমার শরীরে হরমোনগুলো ব্যালেন্সড রাখে ও স্ট্রেচ কমায়। সঞ্জয় দত্তের সাঞ্জু মুভিতে দেখছো নিশ্চয়ই , সাঞ্জু প্রথমে প্রচণ্ড হতাশা, কষ্ট আর নেশায় নিজেকে ডুবিয়ে রাখতো। পরবর্তীতে বডি বিউল্ডিং কিন্তু তার জীবন পালটে দিয়েছে। তাই নিয়মিত শারীরিক কসোরত করার চেষ্টা করো।

আলোচিত ৭ টি টেকনিকের মেইন পয়েন্টগুলো দিয়ে ৭ টি স্টিকি নোট তৈরি করে দেয়ালে লাগিয়ে রাখো। প্রতিদিন ফলো করো। দেখবে, একমাস পর তুমি একজন হাসিখুশি ও প্রাণবন্ত মানুষে পরিণত হয়েছো। হতাশারা তোমাক দেখে ভয়ে লুকোবো। আর তুমি হবে তোমার জীবনের মুশকিল আহসান বাবা।

সবশেষে একটি ছোট্ট অনুরোধ ভিডিওটি তোমার জীবনের সমস্যা সমাধানে এতটুকুও উপকারে আসলে লাইক বাটনে প্রেস করে আমাদের অনুপ্রেরণা দিও। ভিডিও সম্পর্কে তোমার যে কোনো মতামতা জানাতে পারো কমেন্ট করে। আর হ্যাঁ প্রিয় বন্ধুদের সাথে শেয়ার করতে ভুলনা কিন্তু। ভালো থাকো, আবার দেখা হবে নতুন কোনো ভিডিওতে নতুন কোনো টপিকে।

আরও পড়ুন- কিভাবে অলসতা দূর করা সম্ভব বুদ্ধিদীপ্ত উপায়ে

Related posts

জীবনে সফল হওয়ার উপায় – How To Become Successful In Life

Nisikto

স্কিল ডেভেলপমেন্ট বাড়ানোর উপায় – দক্ষতা বৃদ্ধির কৌশল | Skill Development

Nisikto

স্মার্ট ব্যবসা আইডিয়া ও মার্কেটিং করার কৌশল জেনে উদ্যোক্তা হোন

Nisikto

Leave a Comment

error: Content is protected !!